+8801303523442 24/7 Open
শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের জন্য ওয়েবসাইট বানানোর প্রয়োজনীয়তা কতটুকু?

শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের জন্য ওয়েবসাইট বানানোর প্রয়োজনীয়তা কতটুকু?

বর্তমান যুগ ইন্টারনেটের যুগ। সবাই এখন ইন্টারনেটের রিসোর্স ব্যবহার করে। প্রযুক্তির ছোয়া পেয়েছে বাংলাদেশের শিক্ষা প্রতিষ্ঠান গুলোও। শিক্ষার্থীগন ও পিছিয়ে নেই প্রযুক্তির ব্যবহারে। শহরের ছাত্র/ছাত্রীরা যতটা প্রযুক্তি ব্যবহারের সুযোগ পায় তার থেকে অনেক টাই পিছিয়ে আছে গ্রামের ছাত্র/ছাত্রীরা। বিদ্যালয়ের কতৃপক্ষ উদ্যোগ নিয়ে কাজ করলে সবাই কেই আধুনিক প্রযুক্তির ছোয়ায় আনা সম্ভব। প্রতিটি স্কুল, কলেজ, মাদরাসা, বিশ্ববিদ্যালয় তাদের নিজস্ব নিয়মকানুন অনুযায়ী এগিয়ে যাচ্ছে। তারা তাদের ছাএ/ছাএীদের কে নিজস্ব নিয়মের আওতায় রেখে ভর্তি, ফরম ফিলাপ,রেজিস্টেশন, ইত্যাদি করে থাকে । প্রতিষ্ঠানের ওয়েবসাইট এর মাধমে এই কাজ গুলো করা খুবই সহজ। সঠিক সময়ে সহজে ছাত্র-ছাত্রীদের কাছে তথ্য-উপাত্ত পৌছে দেওয়ার জন্য শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ওয়েবসাইট এর বিকল্প নেই।

এখন আমি আলোচনা করব, শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ওয়েবসাইটে যেসকল তথ্য থাকা আবশ্যক এই ব্যপারে।
একটা শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ওয়েবসাইটে কিছু তথ্য না থাকলেই না। সেগুলো হলোঃ

০১। শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের লোগো সহ নাম।
০২। প্রতিষ্ঠানের ইতিহাস।
০৩। প্রতিষ্ঠান প্রধানের বানী।
০৪। সভাপতির বানী।
০৫। শিক্ষক, কর্মকর্তা এবং কর্মচারীদের তথ্য (ছবি, ডিগ্রী এবং অভিজ্ঞতাসহ)।
০৬। পরিচালনা কমিটির তথ্য।
০৭। ছাত্র-ছাত্রিদের তথ্য (প্রতিষ্ঠানে মোট ছাত্র-ছাত্রি, শ্রেণিতে কত, সেকশনে কত,কত ছাত্র ,কত ছাত্রি ইত্যাদি)
০৮। একাডেমীক তথ্য (শ্রেনীভেদে আবশ্যিক বিসয়সমুহ, ঐচ্ছিক বিসয়সমুহ)
০৯। ক্লাস রুটিন (থিউরিকাল, প্রাকটিকাল এবং অতিরিক্ত)
১০। পরীক্ষার রুটিন (অর্ধ বার্ষিক,বার্ষিক, নির্বাচনী, ভর্তি এবং বোর্ড পরীক্ষা)
১১। ফলাফল (অর্ধ বার্ষিক,বার্ষিক, নির্বাচনী, ভর্তি এবং বোর্ড পরীক্ষা)
১২। নোটিশ বোর্ড।
১৩। ফটো গ্যালারী।
১৪। ফটো Slider
১৫।Video গ্যালারী।
১৬। অনলাইন ভর্তি আবেদন।
১৭। সিলেবাস ।
১৮। Social মিডিয়া লিঙ্ক।
১৯।শিক্ষা বিষয়ক গুরুত্বপূর্ণ লিঙ্ক।
২০।Fully Responsive Information (Smart Phone, Tab, Laptop, Desktop) উপরোক্ত তথ্য সমুহের Soft Copy প্রাপ্তি সাপেক্ষে ওয়েবসাইটে আপলোড হবে।

শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ওয়েবসাইট বানাতে ভিসিট করুন।

যেভাবে ওয়েবসাইট সম্পর্কে সকলকে অবগত করতে করনীয় হতে পারেঃ

১।SMSপ্রেরনঃ “সকল অভিবাবক, শিক্ষক, ছাত্র-ছাত্রী এবং শুভানুদ্ধায়ী দের অত্যন্ত আনন্দের সাথে জানানো যাচ্ছে যে, বিলমাড়ীয়া বালিকা বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়, লাল্পুর, নাটোর। প্রতিষ্ঠানটি নিজস্ব ওয়েবসাইটনির্মাণ করেছে। ওয়েবসাইট টির ঠিকানা https://bilmariagirlshighschool.edu.bd/ প্রতিষ্ঠানের সকল তথ্য এখন ওয়েবসাইটে পাওয়া যাবে।

২। মূল ফটকে স্থায়ী বিশেষ বিজ্ঞপ্তি স্থাপনঃ
বিশেষ বিজ্ঞপ্তি “সকল অভিবাবক, শিক্ষক, ছাত্র-ছাত্রী এবং শুভানুদ্ধায়ী দের অত্যন্ত আনন্দের সাথে জানানো যাচ্ছে যে,
বিলমাড়ীয়া বালিকা বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়, লাল্পুর, নাটোর। প্রতিষ্ঠানটি নিজস্ব ওয়েবসাইটনির্মাণ করেছে। ওয়েবসাইট টির ঠিকানা http://bilmariagirlshighschool.edu.bd/ প্রতিষ্ঠানের সকল তথ্য এখন ওয়েবসাইটে পাওয়া যাবে।

৩। সকল স্থানে ওয়েবসাইটের ঠিকানা ব্যবহার করাঃ
ক) ভিজিটিং কার্ড
খ) পোষ্টার
গ) ব্যানার
ঘ) সকল ফর্ম
ঙ) হ্যান্ড বিল ইত্যাদি

Leave a Reply

Close Menu